নীল দ্বীপ (পর্ব ৬)


নীল দ্বীপ (পর্ব ৬)


পরদিন সকালে শুভ্র আর মৃন্ময় বের হলো।সারাটা দিন ঘুরলো।ফোনে কথা বলে।মৃন্ময়ের একটু একটু ভালো লাগতে লাগলো।

 

কয়েকদিন পরে মৃন্ময় শুভ্রর সাথে ঘুরতে গেলো। শুভ্র বললো,কেমন লাগছে তোমার?" 

"হুমম ভালো লাগছে।আপনার!" 

"তুমি আমাকে আপনি বলো কেন!তুমি বলতে তো পারো।"

 "সেটা না হয় পরে বলি।"

 "ঠিক আছে।" 

এই সময় একটা লোক শুভ্রর গাড়ির সাথে এক্সিডেন্ট করলো।শুভ্র গাড়ি থামিয়ে ওই লোককে হসপিটালে নিয়ে গেল।মৃন্ময়ও সাথে গেল।

 

মৃন্ময় একটু ঘুরে দেখছিল তখনি একটা চেনা মুখ তার সামনে পড়ে গেল।মৃন্ময় যেন থমকে গেল সেই মানুষটাকে দেখে।বেডে চোখ বন্ধ করে শুয়ে আছে।মৃন্ময় কাছে যেয়ে ডাক দিল,"সাদিক,এই সাদিক।" 

সাদিক একটু একটু চোখ খুলে বললো,"তুমি এখানে?" 

"আমার কথা হলো তুমি এখানে কেন?"

আর এতদিন তুমি কোথায় ছিলে সাদিক?" "তুমি আমাকে ভুল বুঝেছি তাই না!দেখে মৃন্ময় আমি তোমাকে সত্যি ভালোবাসি।"

 "কিন্তু কেন এতদিন নিখোঁজ হলে?" 

"মৃন্ময় আমি নিজের থেকে নিজেই নিখোঁজ হয়ে গিয়েছিলাম মৃন্ময়।আমার কমায় চলে গেসিলাম।৬ মাস পর আমি কমায় থেকে ফিরে এসেছি।আর কালকে আমি বাড়ি যাবো।" 

মৃন্ময় কথাটা শুনে চমকে উঠলো।দরজায় দাঁড়িয়ে শুভ্র সব শুনছিল।শুভ্রকে দেখে সাদিক বললো,"উনি কে?তোমার স্বামী?" 

"না আমার বিয়ে হয়নি।" 

"ওহ।" 

"উনি শুভ্র আমার ভালো বন্ধু।" 

"উনাকে এখানে আসতে বলো।" 

শুভ্র নিজেই কাছে এলো।শুভ্র অবশ্য একবার হৃদির কাছে সাদিকের কথা শুনেছিল।কিন্তু শুভ্ররও যে মৃন্ময়কে ভালো লেগে গেসে।হয়তো ভালোবেসে ফেলেছে।শুভ্র বললো,"মৃন্ময় আমাদের বাড়ি যেতে হবে এখন।"

"হ্যা যাচ্ছি।" 

সাদিক বললো,"বাড়িতে গেলে তোমাকে কল দিবোনি।আমার ফোন বাড়িতে।" 

মৃন্ময় বললো,"আচ্ছা দিও।"

 

 মৃন্ময় বাড়িতে গেল।খুশি খুশি মুড নিয়ে রুমে ঢুকে হৃদির সামনে বসে বললো,"কফি খাবি?" 

হৃদি বই পড়তে পড়তে বললো,"না।"

 "কেন খাবি না?" 

হৃদি এখন মৃন্ময়ের দিকে তাকিয়ে বলল,"কি হয়েছে বল তো এত খুশি কেন!"

 "সাদিকের সাথে দেখা হয়েছিল।" 

"তাই নাকি কোথায়?"

 "হসপিটালে।" 

তারপর মৃন্ময় সব খুলে বললো।সব শুনে হৃদি বললো,"সত্যি?" 

"হুমম রে।" 

"আহারে।কিন্তু শুভ্র ভাইয়ের কি হবে?"

 "কি হবে মানে?" 

"উনি তোকে ভালোবাসেন।"


fe
তিনি এই গল্পটি পছন্দ করেছেন ।

১টি মন্তব্য

fe

fe

এক বছর আগে

ওয়াও একদিকে পাওয়া গেল সাদিক কে😃 এবার তাহলে মিল হবে 😃 নেক্সট পর্বের অপেক্ষা


মন্তব্য লেখার জন্য আপনাকে অবশ্যই লগ ইন করতে হবে


আপনার জন্য

নীল দ্বীপ (পর্ব ৫)

নীল দ্বীপ (পর্ব ৫)

মৃন্ময় খেয়াল করে দেখল শু...

অমাবস্যার রাত

অমাবস্যার রাত

গল্পটা খুব আগের না এইতো ...

যখন সন্ধ্যা নামে

যখন সন্ধ্যা নামে

প্রতিদিন যখন সন্ধ্যা নাম...

নীল দ্বীপ (পর্ব২)

নীল দ্বীপ (পর্ব২)

ব্রেকফাস্ট শেষে মৃন্ময় ত...

কে তুমি

কে তুমি

                     "কে...

সুবিমলবাবুর স্মরণীয় বাস জার্নি

সুবিমলবাবুর স্মরণীয় বাস জার্নি

১.সুবিমলবাবু অনেকদিন পর ...

সব পেশাই কি সমান???

সব পেশাই কি সমান???

সবাই বলে সব পেশাই সমান!স...

আমি (পর্ব৬)

আমি (পর্ব৬)

"না আপু।" "এই সেই পড়বি।গ...

তুমি অনন্যা  (পর্ব ৬)

তুমি অনন্যা (পর্ব ৬)

রনির মন চাচ্ছে আবার দেখা...

ধাপ্পাবাজ বাপ্পা অথবা ধাপ্পাদা

ধাপ্পাবাজ বাপ্পা অথবা ধাপ্পাদা

—বাপ্পাদার নাম যেভাবে ধা...

~পিল্টু

~পিল্টু

রেলস্টেশনটার পিছনের দিকে...

নীল দ্বীপ

নীল দ্বীপ

           লেখক :ইসরাত ই...

হ্যাবলা

হ্যাবলা

গ্রামের নাম পলাশপুর।গ্রা...

শেষ

শেষ

      ফোন রিং হওয়ার শব্দ...

কবরস্থানের মাঠে একরাত

কবরস্থানের মাঠে একরাত

কবরস্থানের মাঠে একরাত লে...

করোনা

করোনা

নাম ছিলো তার করোনা। খুব ...

জুতা চোর

জুতা চোর

এই বিশুটা জুতা চুরি করে ...

প্রতিবিম্ব

প্রতিবিম্ব

আয়নার সামনে বসে নিজেকে দ...

রাত

রাত

সোউউ… করে একটা অটো চলে গ...

আমি চঞ্চলা

আমি চঞ্চলা

      গল্প পড়ার শখ আমার ...