পাহাড়ের চূড়া


পাহাড়ের চূড়া

             পাহাড়ের চূড়া

             ইসরাত ইমরোজ 

 

লিসা পাহাড়ের সামনে দাঁড়িয়ে আছে।সেখানে একটা লোক এসে বললো,"তুমি কি এই পাহাড়ের চূড়ায় অল্প দিনে উঠতে পারবে?"
লিসা বললো,"এটা খুব সহজই তো।আর এই পাহাড়টি  ছোট।"
লোকটি বলল,"এই পাহাড়ে উঠা এত সহজ না।তোমাকে ১৫ দিন সময় দিলাম।এই ১৫ দিনে তুমি পাহাড়ের চূড়া থেকে আসবে।"
লিসা বললো,"ঠিক আছে আমি দ্রুত আসছি।"

 

পরদিন লিসা রওনা দিল।একটু পথ যেতেই দেখলো একটা সুন্দর বাড়ি।এত সুন্দর বাড়ি কখনো লিসা দেখেনি।গেটের ওপরে লেখা আছে ' এই বাড়িতে বিনা টাকায় থাকতে দেওয়া হবে এবং সব কিছু ফ্রি'।লিসা গেটে দাঁড়িয়ে দেখছিল ভেতরের সবকিছু।দেখতে দেখতে ১ ঘন্টা পার হয়ে গেল।লিসার খুব যেতে ইচ্ছে করলো।তখনি মনে পড়লো পাহাড়ের চূড়ার কথা।তাই লিসা বাড়িতে না ঢুকে তার পথ ধরলো।

 

একটু পর যেতেই লিসা দেখলো একটা পার্ক।সে ভেতরে ঢুকলো।দেখলো অনেক সুন্দর।যত ভেতরে যাচ্ছে ততই পার্কের সুন্দর্য তার সামনে আসছে।পার্ক দেখতে দেখতে লিসার একটা দিন চলে গেল।তখন লিসার মনে পড়লো পাহাড়ের চূড়ার কথা।লিসা বের হয়ে এলো।
 

একটু এগুতে লিসা দেখলো মুগ্ধ করা সুদর্শন এবং ধনসম্পদ সম্পন্ন কয়েকটি ছেলে দাঁড়িয়ে আছে।তারা তকে প্রস্তাব দিল।কিন্তু লিসা তাদের পাত্তা না দিয়ে পথ শুরু করলো।
 

একটু পর দেখলো আগের তুলনায় দ্বিগুন সুদর্শন এবং ধন সম্পদ আছে এমন কয়েকটা ছেলে দাঁড়িয়ে আছে।তারা লিসাকে বিয়ের প্রস্তাব দিল।কিন্তু লিসা রাজি না হয়ে পাহাড়ের চূড়ার দিকে এগুলো।
একটু এগুতে দেখলো চূড়া বেশি দূরে সে নেই।
 

পাহাড়ের চূড়ায় উঠে  দেখলো তার সময় গেল ১৪ দিন।তার আছে আর ১ দিন।তার পরে সে পাহাড় থেকে নেমে এলো তাড়াতাড়ি করে।
তারপর সে নিচে এসে দেখলো লোকটি গাছের নিচে বসে আছে।লিসা লোকটির কাছে যেয়ে বললো,"আঙ্কেল আপনি ঠিকই বলেছেন এই পাহাড়ে এত সহজ না।আমি যখন প্রথমে গেলাম দেখলাম অনেক সুন্দর বাড়ি সবকিছু ফ্রিতে। কিন্তু আমি সেখানে যাইনি।তারপর গেলাম পার্কে সেটা অনেক সুন্দর ছিল সেটা দেখতে আমার ১ দিন পার হয়ে গেল।একটু পর দেখি অনেক সুদর্শন ছেলে আমাকে ডাকছিল আমি তাদের পাত্তা দেইনি।একটু পর দেখি আগের তুলনায় আরো সুদর্শন ছেলে আমাকে বিয়ের প্রস্তাব দিয়েছে আমি তাদেরও পাত্তা দেইনি।শেষে পাহাড়ের চূড়ায় উঠলাম।তখন দেখলাম আমার আছে আর মাত্র ১ দিন তখন আমি দ্রুত নীচে নামলাম।'
লোকটি তখন বললো,"এটা সাধারণ পাহাড়ের চূড়া না।এটা তোমার জীবনের সাফল্যের চূড়া।যদি তুমি এমন করেও যাও তাহলে তুমি তোমার জীবনে সফল হতে পারবে।তোমার সামনে অনেক সুন্দর সুন্দর বস্তু আসবে যদি সেখানে যাও তাহলে সাফল্য অর্জন করতে পারবে না।"

 

 



প্রথম মন্তব্য লিখুন


মন্তব্য লেখার জন্য আপনাকে অবশ্যই লগ ইন করতে হবে


আপনার জন্য

শেষ

শেষ

      ফোন রিং হওয়ার শব্দ...

ফল্টুদার পরিচয়পর্ব

ফল্টুদার পরিচয়পর্ব

১.ফল্টুদার নামের ইতিকথা—...

কেমন আছো তুমি

কেমন আছো তুমি

 নিলিকে আমি আমার মনের কথ...

অর্পন

অর্পন

ভোরের সূর্য উঠার ঠিক আগ ...

কে তুমি  (শেষ পর্ব )

কে তুমি (শেষ পর্ব )

                   কে তু...

যখন সন্ধ্যা নামে

যখন সন্ধ্যা নামে

প্রতিদিন যখন সন্ধ্যা নাম...

সে.....

সে.....

এক নিমষেই কি সব শেষ হয়? ...

নীল দ্বীপ (পর্ব ৭)

নীল দ্বীপ (পর্ব ৭)

মৃন্ময় বললো,"উনি আমাকে ভ...

আমি(শেষপর্ব)

আমি(শেষপর্ব)

তখন রাত।বসে আছি।ছাদে যেত...

অদ্ভুত-উদ্ভট

অদ্ভুত-উদ্ভট

এ কোথায় এলাম আমি?হঠাৎ দে...

তুমি অনন্যা

তুমি অনন্যা

তুমি অনন্যা লেখক:ইসরাত ই...

বটমূল

বটমূল

ছুটির ঘন্টা পড়ে গেল.......

আমি (পর্ব৬)

আমি (পর্ব৬)

"না আপু।" "এই সেই পড়বি।গ...

অনুকথন

অনুকথন

অন্নদার ডাক নাম অনু।অনুর...

সুবিমলবাবুর স্মরণীয় বাস জার্নি

সুবিমলবাবুর স্মরণীয় বাস জার্নি

১.সুবিমলবাবু অনেকদিন পর ...

নীল দ্বীপ (পর্ব২)

নীল দ্বীপ (পর্ব২)

ব্রেকফাস্ট শেষে মৃন্ময় ত...

দার্শনিক ফল্টুদা

দার্শনিক ফল্টুদা

দার্শনিক ফল্টুদা —ফল্টুদ...

নাম হীন গল্প - শেষের অংশ

নাম হীন গল্প - শেষের অংশ

প্রথম অংশের পর…     তখন ...

শুভ্র ও রাইসা

শুভ্র ও রাইসা

বিকাল বেলা বাহিরে মেঘ ডা...

কবরস্থানের মাঠে একরাত

কবরস্থানের মাঠে একরাত

কবরস্থানের মাঠে একরাত লে...